ঢাকারবিবার , ২৮ নভেম্বর ২০২১
  1. গল্প
  2. চারপাঁশে
  3. ভালবাসার খুনসুটি
  4. ভালবাসার গল্প
  5. রাজ রানী

স্বপ্নের রানী সেই তুমি পর্ব-১০

গল্পিবাজ ডেস্ক
নভেম্বর ২৮, ২০২১ ৬:৪৩ অপরাহ্ণ
Link Copied!

স্বপ্নের রানী! অতঃপর আমার পরীক্ষা চলে আসলো পরীক্ষাগুলো দিতে সি এবং পরীক্ষা গুলো খুবই ভালো হচ্ছে যতটা হার্ড বুঝেছিলাম কতটা হার্ড হচ্ছে না পরীক্ষা আলহামদুলিল্লাহ খুবই ভালভাবে সম্পূর্ণ হলো এখন আমি ফ্রি এখন চাকরি খোঁজার পালা ওদিকে আমার এক বছরের টাইম ঘনিয়ে আসছে আর মাত্র দুই মাস বাকি এর মধ্যে চাকরি খুঁজতে হবে আমাকে স্টাবিলিজড হতে হবে ভালো একটা প্রতিষ্ঠান যেতে হবে।

আজকে আপনি বাসায় আসলে আব্বুর সাথে কথা বলব এ বিষয়ে ভেবে বাসায় বসে আছি আজকে বাসা থেকে বের হইনি রুপা বেশ কয়েকবার ফোন দিল কথা বললাম রুপা ও খুশি আমার পরীক্ষা শেষ পরীক্ষা ভালো হয়েছে এটা জেনে আজকে কথা ছিল রুপার সাথে বাইরে কোথাও ঘুরতে যাবো কিন্তু যাওয়া হয়নি রাতে আব্বুর সাথে কথা বলব এজন্য অতঃপর অপেক্ষা করতে করতে চলে আসলো ফ্রেশ হয়ে খাওয়া দাওয়া করে রেস্ট নিতে বসলো তখন আম্মুকে ডাক দিলাম এবং আমি বসলাম বসে আব্বুর সাথে আলোচনা করলাম যে এখন কি করা যেতে পারে পরীক্ষা তো আমার শেষ

আব্বু বললো এখন তোর অপেক্ষা করা ঠিক হবে না যেহেতু আমরা মধ্যবিত্ত তুমিতো বুঝতেই পারছো আমার এই চাকরির বেতন দিয়ে আমাদের সংসারটা টেনে নেয়া কষ্ট হয়ে যাচ্ছে যে তুমি একটু হেল্প করতে পারো তাহলে হয়তো আমরা আরেকটু ভালোভাবে সামনের দিকে আগাতে পারবো আমি বললাম এজন্যই আর বিষয়টি ভেবে সামনের দিকে আমাকে লাগাতে হবে।

আরো পড়ুনঃ  স্বপ্নের রানী সেই তুমি পর্ব-৩

অতঃপর একটা চাকরির জন্য প্রিপারেশন নিতে হবে। আমি চাকরির জন্য প্রস্তুত তবে একটা সরকারি চাকরি পেলে সবচেয়ে বেশি ভালো হতো যদিও কষ্ট হবে কিন্তু আমার ভবিষ্যৎ উজ্জ্বল হোক সে অপেক্ষায় সরকারি চাকরি খুজতে লাগলাম কিন্তু তেমন নিয়োগ পাচ্ছি না অতঃপর সেখানে গেলাম কিন্তু সবথেকে হলেও তাকে আঘাত পারছিনা, যার জন্য সে চাকরিটা আমি পাইনি। স্বপ্নের রানী

এভাবে আরও ১৫ দিন চাকরির পেপার পড়তে পড়তে একটা বেসরকারি কোম্পানিতে চাকরির নিয়োগ পেলাম সেখানে মান্থলি বেতন ছিল শুরুতেই ৩৫,০০০৳ তবে একটু কষ্ট করতে হবে বেশি এবং তারা কাজ শিখিয়ে কাজ করাবেন যেটা আমার জন্য প্লাস পয়েন্ট ছিল তাদের কোম্পানি সেলস সফটওয়্যার কোম্পানি। স্বপ্নের রানী! আমি সে অফিসে গেলাম এবং সেখানে আমার সার্টিফিকেট দেখতে চাইল সার্টিফিকেটের দেখে তারা খুবই বিস্মিত আমার অনেক রেজাল্ট খুবই ভালো ছিল তা রেজাল্ট দেখে অবাক হয়ে গেল তাই বলল আপনি এই চাকরি করতে রাজি আমি বললাম হ্যাঁ। স্বপ্নের রানী!

আরো পড়ুনঃ  স্বপ্নের রানী সেই তুমি পর্ব-৭

স্বপ্নের রানী সেই তুমি পর্ব-৯

পরে তারা বলল আপনার প্রমোশন হওয়ার সম্ভাবনা থাকবে এতে আপনার কাজের দক্ষতা কেমন তার উপর ভিত্তি করে আপনার প্রমোশনের জন্য হবে। আমি বললাম আপাতত আমি এই সেকশনে চাকরিটা করতে চাই তারা বলল ঠিক আছে আপনি ইন্টারভিউ এর জন্য আসেন আগামী ২৬ তারিখ। স্বপ্নের রানী! আমি বললাম ঠিক আছে ২৬ তারিখের মধ্যে আর কোথাও চাকরি বুঝলাম না ২৬ তারিখ পর্যন্ত অপেক্ষা করলাম এবং ২৬ তারিখ ইন্টারভিউ এর জন্য প্রিপারেশন নিয়ে চলে গেলাম তাদের অফিসে এবং সেখানে গিয়ে ইন্টারভিউ দিলাম তারা যেসব প্রশ্নগুলো করছেন সেগুলো ইনশাল্লাহ খুব ভালোভাবেই অ্যানসার দিতে পেরেছে তারাও খুব সন্তুষ্ট অতঃপর তারা বলল আমরা আপনাকে নিয়োগ দিয়েছে আমাদের এখানে আপনার চাকরি পাকা আপনি আমাদের এখানে আগামী ১ তারিখ থেকে জয়েন করবেন। স্বপ্নের রানী

আমি বললাম ঠিক আছে আমি চাকরি পেয়েছিস শুনে রুপার আব্বু আম্মু এবং আমার আব্বু আম্মু সবাই বহুৎ খুশি তারা অনেক বেশি খুশি হয়েছে।স্বপ্নের রানী!  অতঃপর সবাই খুশি আমার চাকরির বয়স প্রায় দুই মাস হয়ে গেল। আমি প্রথম বেতন পেয়ে সবাইকে জামাকাপড় সব কিছু কিনে দিয়েছি ভাষার জন্য বাজার করেছে সবকিছু করেছি এখন আব্বু খুশি আব্বুর কষ্ট করতে হচ্ছে না বেসে।

আরো পড়ুনঃ  স্বপ্নের রানী সেই তুমি পর্ব-২

অতঃপর আব্বু রুপাদের বাসায় গেল এবং তারা বিয়ের জন্য ডেট ফাইনাল করল। স্বপ্নের রানী! রুপা রাও সবাই বিয়ের জন্য প্রস্তুত ঠিকঠাকভাবে বিয়ে হল সবকিছু ঠিকঠাক ভাবে হলো অতঃপর রুপা খুব বেশি খুশি এখন রুপা প্রচুর খুশি ‌‌আমাদের সংসার এখন উজ্জ্বল হলো সবাই হই হুল্ল প্রচুর সুখ আমাদের সংসার এর মধ্যে এখন আমরা সবাই স্বাভাবিকভাবেই জীবন যাপন করছে সবাই এখন খুব বেশি আনন্দিত।

অতঃপর আমাদের বিয়ের কয়েক বছর হয়ে গেল আমাদের সংসারে একটা ফুটফুটে কন্যা সন্তান এল তার নাম দিয়েছে “রস্মিতা আক্তার জুঁই” আমাদের সন্তান খুবই কিউট এবং খুবই ভাগ্যবতী তাকে নিয়ে আমাদের জীবনের বাকিটুকু কাটিয়ে দিলাম। এভাবে চলতে থাকলে আমাদের জীবনের বাকি অংশ।