ঢাকাশনিবার , ২৭ নভেম্বর ২০২১
  1. গল্প
  2. চারপাঁশে
  3. ভালবাসার খুনসুটি
  4. ভালবাসার গল্প
  5. রাজ রানী

ভালোবাসার রাজ রানী আমার পর্ব-১

গল্পিবাজ ডেস্ক
নভেম্বর ২৭, ২০২১ ১০:২৭ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

ভালোবাসার রাজ রানী আমার এটি একটা আকাঙ্ক্ষিত গল্পের সাথে বাস্তবের কোন মিল নেই তবে বর্তমান সমাজে এটার মতই হাজার হাজার গল্প রয়েছে আমাদের সমাজে সেগুলো তুলে ধরার জন্য এই গল্পটি লেখা হয়েছে এই গল্পের মাধ্যম এ সমাজের অনেক গল্পের সাথে মিল পাওয়া যেতে পারে। ভালোবাসার রাজ রানী গল্পের প্রথম পর্ব এটি। রাজ রানী আমার

আমাদের ভালোবাসা ছিল অন্য সব ভালোবাসার থেকে আলাদা, আমাদের ভালবাসার মধ্যে কখনো কোন মিথ্যার আশ্রয় কিংবা সন্দেহভাজন কোনো ফাটল দেখা যায় নি। অন্যসব ভালোবাসার থেকে আমাদের এটা ভিন্ন ছিল। বিশেষ করে আমাদের দেখা কথা বলা সবগুলো ছিল ভিন্ন রকম মনে হতো একজনের জন্য অন্য জনকে তৈরি করা হয়েছে। ওর সাথে কথা না বলে আমিও একটু সময় থাকতে পারতাম না অনুরূপভাবে আমার সাথে কথা না বললে ও একটু সময় থাকতে পারত না। রাজ রানী আমার

হ্যাঁ আমাদের কথাই বলছি আমার নাম ইমরান হোসেন এবং আমার অন্য পৃথিবী অর্থাৎ গার্লফ্রেন্ডের নাম সুমাইয়া আক্তার ইসরাত। আমার বয়স বর্তমানে ২৩ বছর আর সুমাইয়ার বয়স মাত্র ১৯ বছর আমরা দুজনেই সাভার লীগ আমরা ভালো-মন্দ সবকিছু বুঝতে পারি এটুকু বোঝার ক্ষমতা আমাদের মধ্যে রয়েছে। আমাদের রিলেশন এর বয়স আড়াই বছর (২.৫ বছর) এই আড়াই বছরের মধ্যে আমাদের মধ্যে অনেক ঝগড়া হয়েছে আবার সেটা খুব দ্রুত সমাধান হয়ে গেছে। রাজ রানী আমার

আরো পড়ুনঃ  ভালোবাসার রাজরানী আমার পর্ব-৫

আমি ইমরান আমার বাসা রাজধানীর উত্তরা নিকুঞ্জ তে, আর ইশরাতের বাসা ঢাকা উত্তরা খিলক্ষেত। আমাদের পরিচয় শুরু হয় ভার্সিটি থেকে। ঢাকা ভার্সিটি থেকেই আমাদের পরিচয় শুরু এবং সেই পরিচয় থেকে আস্তে আস্তে আমাদের ভালোলাগা শুরু হয় এবং এক পর্যায়ে আমরা দুজন দুজনকে অনেক বেশি ভালোবেসে ফেলি আমাদের বর্তমান ভালোবাসার স্ট্যাটাস একদম অ্যাক্টিভ বলা যেতে পারে। রাজ রানী আমার

আমাদের ভালোবাসাটা শুরু হয়েছিল অন্যসব ভালোবাসার থেকে অনেক বেশি আলাদাভাবে আগের ভালোবাসাটা একদম ভিন্ন ছিল এর মধ্যে কোন ধরনের কাকতালীয় কোন কিছুই ছিল না। অবশ্য এখনও আমাদের ভালোবাসার এই পরিণতি দেখে অনেকে বিভিন্নভাবে হিংসে করে এটা আমরা বুঝতে পারি কিন্তু আমরা কোনভাবেই থেমে নেই আমরা আমাদের ভালবাসার জায়গা থেকে অটল এবং শক্ত হয়েছে আমরা কেউ কাউকে কখনো ছেড়ে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি সবসময় দিয়ে থাকে। রাজ রানী আমার

ভালোবাসার রাজ রানী আমার পর্ব-২

আমি যেদিন ভার্সিটিতে প্রথম যাই সেদিন ওই মেয়েকে দেখতে পাইনি অর্থাৎ ইশরাতকে দেখতে পাইনি ইসরাত আমি ভার্সিটিতে যাওয়ার দেড় বছর পরে ভার্সিটিতে গেছে। অবশ্য ছিল আমার জুনিয়র আমি ছিলাম ওর সিনিয়র ক্লাসে তাই ওর সাথে কি মশকরা সৌভাগ্য আমার হয়ে ওঠেনি। আমরা দুজন তু ক্লাসে থাকলেও আমাদের মন ছিল এক জায়গাতে। আমাদের ভালোবাসার শুরুটা ছিল এমন যে, ভার্সিটির ক্লাস শেষে কেনটিন গিয়ে খাবার খাচ্ছিলাম হঠাৎ করে সেখানে ইসরাত চলে যায় খাবার খাওয়ার জন্য ইসরাত আমাকে লক্ষ্য করলেও বিষয়টা এতো সিরিয়াসলি নেয় নি কিন্তু আমি হাসতে দেখে হতভম্ব হয়ে গেলাম স্ট্যাচুর মত থেমে গেলাম। রাজ রানী আমার

আরো পড়ুনঃ  ভালোবাসার রাজরানী আমার পর্ব-৩

খাবার মুখে নিচ্ছি না এভাবে ওর দিকে তাকিয়ে আছে বিষয়টি ইসরাত দেখল লেখার পরে তাকিয়ে মুচকি হাসি দিলো তখন আমার কোন হুশ নেই আমি ওর দিকেই তাকিয়ে আছে কারণ ভার্সিটিতে যখন আসলো প্রথম আমি ওকে কয়েকবার দেখেছি তখন ওর মুখ ঢাকা ছিল ওর মুখ দেখার মতো সৌভাগ্য হয়নি কিন্তু খাবার ক্যান্টিনে যখন মুখ খুলল তখন দেখতে পেলাম একটা পরীর মত একটা মেয়ে এটা পরী নাকি মেয়ে আমি কখনো বিশ্বাস করতে পারিনি। রাজ রানী আমার

অদ্ভুত ভাবে তাকিয়ে থাকার ফলে মিম ওর টেবিল থেকে আমার কাছে এসে আমার চোখের সামনে হাত নাড়াতে লাগলো অন্য এই যে মিস্টার কি দেখে এভাবে তাকিয়ে আছেন আপনাকে ভুতে ধরে নি তো তখন আমার ধ্যান ভাঙ্গলো আমি হতভম্ব হয়ে গেলাম বললাম না ঠিক আছে। ইসরাত বলল এখানে তাকিয়েছিলেন কেন কি দেখলেন ওখানে আমি বললাম কই কিছু দেখিনি তো এমনি তাকিয়ে ছিলাম। আমি শুধু বললাম আপনি বুঝবেন কি এখানে তাহলে বুঝতে পারেন সে বলল আমার খাবার ওই টেবিলে আছে আমি ওখানে বসব আপনি বসে খেয়ে নেন ধন্যবাদ। রাজ রানী আমার

আরো পড়ুনঃ  ভালোবাসার রাজ রানী আমার পর্ব-২

অবশ্য আমি ওকে বোঝাতে পারলাম না আমি ব্যর্থ হলাম কিন্তু ব্যর্থ হলেও আমার কোন দুঃখ নেই ওর সাথে একটু হলেও কথা বলতে পেরেছি অবশ্য এখনও ওর নামটা আমার জানা হয়নি আমি আমার খাবারসহ টেবিলে চলে গেছি নির্লজ্জের মত অবশ্য একটু অদ্ভুত ভাবে হাসি দিয়ে বলল এখানে খাবেন আমি বললাম আপনার যদি সমস্যা না থাকে তাহলে খেয়ে নে।

এই গল্পের পরবর্তী পর্ব পড়তে এখানে ক্লিক করুন। গল্প কেমন লাগে সেগুলো জানাতে ভুলবেন না আপনার কমেন্টের উপর ডিপেন্ড করে আমাদের বাকি পর্বগুলো তৈরি করা হয়। রাজ রানী আমার